পরকালীন প্রস্তুতি

কুর'আন-সুন্নাহর আলোকে পরকালীন মুক্তির আশায় একটি পরকালমুখী উদ্যোগ

পানাহারের সময় পালনীয় কিছু সুন্নাত


১. ডান হাতে পানাহার করা এবং 'বিসমিল্লাহ' বলে শুরু করা। -(তিরমিযীঃ ১৮৫৭)

২. পৃথক পৃথক খাওয়ার চেয়ে একত্রে মিলে খাওয়া। -(ইবনে মাজাহঃ ৩২৮৬)

৩. খাওয়ার সময় কোন খাদ্যকণা নিচে পড়লে তা (পরিষ্কার করে) খেতে সংকোচবোধ না করা। -(তিরমিযীঃ ১৮০২)

৪. মালিক কর্মচারী একসাথে খাওয়া। -(ইবনে মাজাহঃ ৩২৮৯)

৫. খাবার শেষে হাতের আঙ্গুল ও খাবার প্লেট চেটে খাওয়া। -(মুসলিমঃ ৫৩০০)

৬. যেকোনো পানীয় অল্প অল্প করে তিন ঢোকে পান করা। -(মুসলিমঃ ৫২৮৭)

৭. দুধ পান করে কুলি করা। -(সহীহাঃ ১৩৬১)

৮. পেয়ালার মধ্যখান থেকে খাবার শুরু না করা ল। -(সহীহাঃ ১৫৮৭)

৯. পানাহার শেষে 'আলহামদুলিল্লাহ' বলা। -(তিরমিযীঃ ১৮১৬)

১০. সম্মিলিতভাবে পানাহারের সময় পরিবেশনকারী ডান দিক থেকে পরিবেশন করা। -(মুসলিমঃ ৫২৯১)

১১. রাত্রে পানাহারের পর 'বিসমিল্লাহ' বলে ঢেকে রাখা। -(বুখারীঃ ৫৬২৩)

১২. বাম হাতে পানাহার না করা। -(মুসলিমঃ ৫২৬৭)

১৩. বিনা অজুহাতে দাঁড়িয়ে পানাহার না করা। -(মুসলিমঃ ৫২৬৭)

১৪. সোনা-রূপার পাত্রে পানাহার না করা। -(আবু দাউদঃ ৩৭২৩)

১৫. পানীয় বস্তুতে ফুঁক না দেওয়া। -(মুসলিমঃ ৫২৮৫)

১৬. ভাঙ্গা পাত্রে পানাহার না করা। -(আবু দাউদঃ ৩৭২২)

১৭. বিনা দাওয়াতে কোন অনুষ্ঠানে আহার না করা। -(তিরমিযীঃ ১০৯৯)


[পোস্ট টি শেয়ার করে অন্যদের জানার সুযোগ দিন]

কোন মন্তব্য নেই